আফগানিস্তানে পড়ে থাকা মাইন নিয়ে খেলার সময় নিহত ৯ শিশু

আফগানিস্তানে স্থলমাইন বিস্ফোরণে ৯ শিশু নিহত হয়েছে। সোমবার আফগানিস্তানের দক্ষিণ-পূর্বাঞ্চলের তালিবান কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, রাতে স্থলমাইন বিস্ফোরণে এসব শিশু প্রাণ হারায়।

প্রাদেশিক সরকারের এক মুখপাত্র জানান, ‘অবিস্ফোরিত মাইনটি’ অতীতের সংঘর্ষের অবশিষ্টাংশ। রোববার এটি নিয়ে গজনি প্রদেশের গেরু জেলায় একদল তরুণ ছেলে-মেয়ে খেলছিল। খবর রয়টার্সের

হামিদুল্লাহ নিসারের দাবি, ১৯৮০ এর দশকের আফগানিস্তানে বিদেশি আগ্রাসনের সময় থেকেই এই অস্ত্র ফেলে রাখা হয়েছিল।

সোমবার কাবুলে জাতিসংঘ বলেছে, আফগানিস্তানে ভূমিমাইন ও যুদ্ধের বিস্ফোরক অবশিষ্টাংশের আঘাতে নারী ও শিশুসহ হাজার হাজার বেসামরিক মানুষ নিহত ও আহত হয়েছে।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম এক্সে এক পোস্টে জাতিসংঘ জানিয়েছে, অংশীদাররা ৩ হাজার ১১ বর্গ কিলোমিটার (১ হাজার ১৬২ বর্গ মাইল) জমি পরিষ্কার করেছে। এটি জোর দিয়ে বলেছে, কয়েক দশক সংঘাতে জর্জরিত থাকা আফগানদের রক্ষা করার জন্য আরও কাজ করা প্রয়োজন।

১৯৯০ এর দশকে রুশ সেনারা দেশটি থেকে সরে যাওয়ার পর আফগানিস্তানে কয়েক বছর ধরে চলা গৃহযুদ্ধের অবসান ঘটে।

তালেবান বিভিন্ন আফগান উপদলের মধ্যে আসন্ন ক্ষমতার লড়াইয়ে বিজয়ী হয়ে ওঠে, ১৯৯৬ সালে দেশের বেশিরভাগ অংশের নিয়ন্ত্রণ নেয় এবং ইসলামি আইনে শাসন শুরু করে। ৫ বছর পর তালেবানকে ক্ষমতা থেকে অপসারণ করা হয়।

২০০১ সালে আফগানিস্তানে হামলা শুরু করে যুক্তরাষ্ট্র। তবে শেষ পর্যন্ত তালেবানের সঙ্গে জিততে না পেরে ২০২১ সালের আগস্টে আফগানিস্তান সব বিদেশি সেনা সরিয়ে নেয় যুক্তরাষ্ট্র। এরপরই আবার দেশটির ক্ষমতা দখল করে তালেবান।

Check Also

ইসরায়েলি হামলায় গাজায় একই পরিবারের ১৩ শিশু নিহত

দক্ষিণ গাজার রাফাহ অঞ্চলে ইসরাইলি বিমান হামলায় এক পরিবারের ১৩ জন শিশুসহ দুই জন নারী …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *