প্লে-অফের পথে হেঁটে কুমিল্লাকে চ্যালেঞ্জ করলো সিলেট

১১ ওভারের খেলা শেষে সিলেট স্ট্রাইকার্সের রান ছিল ৪ উইকেটে ৭৪ রান। তখন মনে হয়েছে, প্লে-অফের পথে হাঁটা কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্সকে হয়তো লড়াই করার মতো একটি চ্যালেঞ্জিং পুঁজিও দিতে পারবে না সিলেট। কিন্তু পঞ্চম উইকেটে মোহামম্মদ মিথুন আর বেনি হাওয়েলের ৪২ বলে ৭৭ রানের জুটির উপর ভর করে চ্যালেঞ্জিং লক্ষ্য দাঁড় করানোর দিকে এগিয়ে যায় সিলেট।

শেষ দিকে হাওয়েল ও আরিফুল হকের মারকুটে ব্যাটিংয়ে কুমিল্লাকে দারুণ এক চ্যালেঞ্জ ছুঁড়ে দেয় সিলেট। হাওয়েলের দুর্দান্ত ফিফটিতে অবশেষে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৫ উইকেটে ১৭৭ রান তোলে মিথুনের দল। অর্থাৎ প্লে-অফে নিজেদের জায়গা নিশ্চিত করতে কুমিল্লাকে করতে হবে ১৭৮ রান।

আজ সোমবার চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে টস জিতে ব্যাট করতে নেমে ৫ ওভারে উদ্বোধনী জুটিতে ৪০ রান তোলে সিলেট। ১৭ বলে ১৮ রান করে ফেরত যান ওপেনার জাকির হাসান। দলীয় ৬৭ রানের আরেক ওপেনার কেনার লুইস ২৫ বলে ৩৩ রান করে আউট হয়ে গেলে দ্রুত আরও দুটি উইকেট (নাজমুল হোসেন শান্ত ১২ রানে, ইয়াসির আলি ২ রানে) হারিয়ে কিছুটা চাপে পড়ে সিলেট।

এরপর চাপ সামনে ব্যাট করতে থাকেন মিথুন ও হাওয়েল। মিথুন ২০ বলে ২৮ করে আউট হয়ে গেলেও দুর্দান্ত ফিফটি হাঁকান হাওয়েল। ২৫ বলে অর্ধশতক হাঁকানোর পর ৩১ বলে ৬২ বলের অপরাজিত ইনিংস খেলেন তিনি। এর মধ্যে ১৭তম ওভারে রিশাদকে তুলোধুনো করে ২৪ রান নেন মিথুন ও হাওয়েল।

মিথুন আউট হয়ে গেলে আরিফুল হকের সঙ্গে ১৩ বলে ২৬ রানের জু্টি করেন হাওয়েল। শেষ পর্যন্ত ১৭৭ রান তুলে কুমিল্লাকে একটি চ্যালেঞ্জই ছুঁড়ে দেয় সিলেট।

বিপিএলে এরইমধ্যে বিদায় নিশ্চিত হয়ে গেছে সিলেটের। আজ তাদের কেবল নিয়ম রক্ষার ম্যাচ। অপরদিকে কুমিল্লা আজকের ম্যাচটি জিততে পারলেই প্লে অফে জায়গা নিশ্চিত করবে।

Check Also

আফ্রিদির ফিটনেস নিয়ে কী বললেন আজহার মেহমুদ?

পাকিস্তান ক্রিকেট দলের সাবেক অধিনায়ক শাহিন শাহ আফ্রিদির ফিটনেস নিয়ে প্রধান কোচ আজহার মেহমুদ বলেছেন, …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *