ল্যাব এর কেন্দ্রীয় কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক হলেন মোঃসাইফুল ইসলাম

(ল্যাব) ল এসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ আইনজীবী, শিক্ষানবিশ আইনজীবী,আইনের ছাত্রদের নিয়ে গঠিত বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সেচ্ছাসেবী,রাজনীতিমুক্ত আইনি সংগঠনটির ৪৫ সদস্য বিশিষ্ট আংশিক কমিটির অনুমোদন দিয়েছেন সংগঠনটির প্রতিষ্ঠাতা সদস্য মিজানুর রহমান এবং মরিয়াম জামিলা। এখন পর্যন্ত সংগঠনটি ৩৭টা জেলা কমিটি, ২টা মহানগর কমিটি, ২০টিরও বেশি প্রাইভেট এবং পাবলিক ইউনিভার্সিটি কমিটি , বেশ কয়েকটি ল’ কলেজে কমিটি এবং দেশের বাইরে একটি কমিটি দেওয়ার মধ্যদিয়ে সংগঠনটি সম্মানের সাথে সাংগঠনিক কাজ করে যাচ্ছে। সংগঠনের সভাপতি শরিফুল হক তুমুলসহ ৪৫ সদস্যের আংশিক কমিটিতে বৃহত্তর ময়মনসিংহ বিভাগের নেত্রকোনা জেলার সদর উপজেলার কৃতি সন্তান মোঃসাইফুল ইসলাম কেন্দ্রীয় কমিটি-২০২১ এর সাংগঠনিক সম্পাদক নির্বাচিত হয়েছেন। মোঃ সাইফুল ইসলাম বাংলাদেশ ইসলামি বিশ্ববিদ্যালয় থেকে আইন ও বিচার বিভাগে স্নাতক(সম্মান) এবং বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটি অফ বিজনেস এন্ড টেকনোলজি থেকে আইনে স্নাতকোত্তর এ অধ্যয়নরত আছেন । এছাড়াও তিনি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় এর ক্রিমিনোলোজি এন্ড ক্রিমিনাল জাস্টিস বিভাগ থেকে স্নাতকোত্তর এ অধ্যয়নরত আছেন। মোঃ সাইফুল ইসলাম তরুন সংগঠক গড়ে তুলতে নিরবচ্ছিন্ন ভাবে কাজ করে যাচ্ছেন বিগত নয় বছর ধরে , এই তরুন সংগঠক কাজ করছেন, জাতীয় খাদ্য নিরাপত্তা আইন নিশ্বয়নে, যুক্ত ছিলেন ইয়ুথ এগেইনস্ট হাংগার এর সাথে এবং পরপর দুইবার জাতীয় যুব ছায়া সংসদ এ ইয়ুথ এমপি হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন। এছাড়াও অর্জন করেছেন দেশের সবচেয়ে বড় বিতর্ক সংগঠন ন্যাশনাল ডিবেট ফেডারেশন এর ২০১৯ বিতর্ক অনুষ্টানের বেস্ট পারফর্মার এওয়ার্ড। এছাড়াও জনসেবায় সক্রিয় এই সংগঠক সাইফুল ইসলাম এখন পর্যন্ত প্রায় ২৫ বার রক্তদান করেছেন এবং যুক্ত আছেন ঢাকার একটি বিশিষ্ট রক্ত সেবা দাতা প্রতিষ্ঠান( ইমার্জেন্সি ব্লাড ডোনার) গ্রুপের সাথে। তিনি বলেন,” দেশে বর্তমানে প্রায় পঞ্চাশ লক্ষ আইন প্রক্রিয়াধীন যার পরিমান প্রতিনিয়তই বর্ধমান, আমরা চাই দেশের আইনি সেবা আরো সচ্ছ এবং সল্পমেয়াদে সমাধান করতে, দেশের প্রতিটি মানুষ যেনো আইনি সুফল ভোগ করতে পারে সে বিষয়ে সচেষ্ট থেকেই আমাদের সংগঠন ল’ এসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ(ল্যাব)। সংগঠন এর মাধ্যমে দেশের প্রতিটি জেলায় উপজেলায় এবং প্রত্যন্ত অঞ্চলে ছড়িয়ে দিতে চাই আইনি সেবা ও জন মানবাধিকার রক্ষায় এগিয়ে যেতে চাই শেষ পর্যন্ত । আমি আপনাদের সকলের দোয়া প্রার্থী। আপনারা দোয়া করবেন, যাতে সব জায়গায় ন্যায়বিচার ও আইনের শাসন প্রতিষ্ঠার মাধ্যমে আমরা আমাদের লক্ষ্য ও উদ্দেশ্যের বাস্তবায়ন ঘটাতে পারি। আমরা দৃঢ়ভাবে বিশ্বাস করি, একদিন ল্যাবের হয়ে সর্বস্তরের মানুষকে আইন সম্বন্ধে সচেতন করতে সক্ষম হবো ইনশাআল্লাহ এবং সবাই এই নব জাগরণে সচেষ্ঠ থাকবো।

Check Also

বরিশাল জেলা কৃষক লীগ নেতার মায়ের ইন্তেকাল

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ বরিশাল জেলা কৃষক লীগের শ্রমবিষয়ক সম্পাদক রাশেদুল হাসান মিরাজের মা খোদেজা বেগম। তিনি …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *